পলাশে ছুরিকাঘাতে স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ, স্বামী গ্রেফতার

মোঃ ফারদিন হাসান দিপ্তঃ নরসিংদীর পলাশ উপজেলার ঘোড়াশালে যৌতুকের টাকা না পেয়ে রত্মা বেগম (১৮) নামে এক গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ  উঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। আজ সোমবার (৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ঘোড়াশাল পৌর এলাকার ভাগ্যেরপাড়া গ্রামে ওই গৃহবধূকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করেছেন বলে অভিযোগ পরিবারের।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত স্বামী আল রাব্বি (২০) কে গ্রেফতার করেছে পলাশ থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃত আল রাব্বি ভাগ্যেরপাড়া গ্রামের আল আমিন মিয়ার ছেলে এবং নিহত গৃহবধূ রত্মা বেগম একই গ্রামের জাকির হোসেনের মেয়ে।

নিহতের পরিবার জানায়, দীর্ঘদিন প্রেম করার পর সাত মাস আগে রত্মা’র সাথে বিয়ে হয় রাব্বি’র। বিয়ের পর রাব্বি মাদকাসক্ত বলে জানতে পারে রত্মা ও তার পরিবার। নেশার টাকার জন্য বিভিন্ন সময়ে রাব্বি তার স্ত্রী রত্মাকে মারধর করতো। সোমবার দুপুরে শশুর বাড়ি থেকে ১ লাখ টাকা এনে দেওয়ার জন্য দাবী স্ত্রীকে জানায় স্বামী।

দাবিকৃত টাকা এনে দিতে অপরাগতা জানালে আবারও তাকে মারধর করে স্বামী। এক পর্যায়ে স্ত্রীকে পেটে ও গলায় ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় স্বামী রাব্বি। পরে রত্মাকে রক্তাক্ত অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে পলাশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াছ জানান, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে সুরতহাল করা হয়েছে, ময়নাতদন্তের জন্য  মর্গে পাঠানো হবে। ঘটনার পর অভিযুক্ত স্বামীকে পালিয়ে গেলেও অভিযান চালিয়ে গ্রেফতার করা হয়। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান ওসি।