স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের সদস্য সচিবের সাথে মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার অসৌজন্যমূলক আচরণ

১৮ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার সকাল আনুমানিক ১১ ঘটিকায় সরাইল উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে বিশেষ জরুরি প্রয়োজনে গিয়েছিলেন কালিকচ্ছ পাঠশালা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের সদস্য সচিব মোঃ শাহাগির মৃধা। এমতাবস্থায় নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে প্রবেশ করেই উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শহিদ খালিদ জামিল খান শাহাগির মৃধাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, “এই শাহাগির তুমি এখানে বসে আছো কেন, তোমার এখানে কি কাজ, এখন তো তোমার স্কুলে থাকার কথা” একজন দ্বায়িত্বশীল কর্মকর্তার অফিসে বসে এ ধরনের অশালীন প্রশ্নবানে জর্জরিত হলে শিক্ষক শাহাগির মৃধা হতবাক হয়ে যান।তিনি শিক্ষা অফিসারকে বুঝাতে চেষ্টা করেন যে, “স্কুলে ক্লাস না থাকায় একটি বিশেষ প্রয়োজনে সরাইল ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল জব্বার ভাই নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে থাকায় তিনি এখানে এসেছেন”। এরপরেও মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা তার প্রধান শিক্ষককে ফোন দিয়ে তিনি কেন সরাইল এসেছেন এ ব্যাপারে জানতে চান বলে শাহাগির মৃধা প্রতিবেদককে জানিয়েছেন। মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার এমন ঔদ্ধত্যপূর্ন ও অশালীন আচরণে অনেক শিক্ষকই অসন্তোষ। কিন্তু কেউই তার ভয়ে মুখ খুলতে চায় না। সরাইল স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার এ ধরনের রুঢ় আচরণে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।