দেশ ব্যাপি সবুজায়ন, পরিষ্কার পরিছন্নতা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গার্ডেনিং কর্মসূচি নিয়ে ক্লিন গ্রীন বাংলাদেশ এখন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায়

Spread the love

হালিমা খানমঃ গতকাল ২১ শে ফেব্রুয়ারি রোজ রবিবার বিকাল ৩ ঘটিকায় দামচাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে দেশ ব্যাপী পরিষ্কার পরিচ্ছন,সবুজায়ন ও গার্ডেনিং এর অংশ হিসেবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সাদেকপুর ইউনিয়নের পাঁচটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন বৃক্ষরোপন ও গার্ডেনিং কর্মসূচি পালিত হয়েছে। ক্লিন এন্ড গ্রীন ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য জাহাঙ্গীর আলমের সভাপতিত্বে উক্ত অনুষ্ঠানে উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাদেকপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এড. আব্দুল হাই,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাদেকপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. হাবিবুর রহমান,সাদেকপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সিনিয়র সভাপতি হাজী মতিউর রহমান,সাদেকপুর ইউপি হাই স্কুল এন্ড কলেজের সিনিঃ শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ,সাদেকপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৮ নং ওয়ার্ডের মেম্বার বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হান্নান,ছাত্রনেতা বিল্লাল হোসেন,ও শিক্ষক শিক্ষিকা ও ছাত্র ছাত্রী সহ আরো অনেকে। ক্লিন গ্রিন বাংলাদেশ ব্রাহ্মণবাড়িয়া ইউনিটের কর্মসূচির আয়োজনে ৫ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে চারা রোপন, বাগান পরিষ্কার পরিছন্নতা, গরিব ও মেধাবী ৫০/৬০ ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে পুরষ্কার বিতরন করা হয়েছ।এবং অমর একুশে আন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে শহিদদের স্মরন পুষ্পস্তবক অর্পন করা হয়। “ক্লিন গ্রীন বাংলাদেশ” একের পর এক যেভাবে তাদের নয়টি শাখার মাধ্যমে দেশব্যাপি পরিচ্ছন্নতা, সবুজায়ন ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গার্ডেনিং কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছে তা নিঃসন্দেহে প্রশংসার দাবী রাখে। পরিবেশ ও বায়ু দুষনের হাত থেকে এদেশকে বাঁচতে হলে বৃক্ষরোপণের বিকল্প নেই।উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানে বক্তারা ক্লিন গ্রীন বাংলাদেশের প্রধান সমন্বয়ক ও ক্লিন গ্রীন ফাউন্ডেশন ও গরীব ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি জি এম কিবরিয়ার মহৎ কাজের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন ও সম্মুখ যোদ্ধা হিসেবে আখ্যায়িত করেন। উক্ত কর্মসূচির বাস্তবায়নে ছিলেন ক্লিন গ্রীন বাংলাদেশ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ইউনিট। সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ছিলেন ক্লিন গ্রীন ফাউন্ডেশন ও গরীব ফাউন্ডেশন।শিক্ষাথীদের মাধ্যমে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার বার্তা পৌছে দিতে ক্লিন গ্রীন বাংলাদেশের এই আয়োজন।