নাঙ্গলকোটের পুজকরায় ভাতিজির প্রেমে আসক্ত হয়ে মা-ভাবিকে কুপিয়ে হত্যা

Spread the love

মশিউর রহমান সেলিম, লাকসাম:

কুমিল্লার দক্ষিনাঞ্চল নাঙ্গলকোট উপজেলার আদ্রা দক্ষিন ইউপির পুজকরা গ্রামে ভাতিজির প্রেমে
আসক্ত হয়ে নিজের মা ও ভাবিকে কুপিয়ে হত্যা করেছে সাইদুল হক ওরফে সিকি (২৮) নামের এক
পাষন্ড। এ ঘটনায় ঘাতক সাইদুল হক কে এলাকাবাসীর সহায়তায় আটক করেছে থানা পুলিশ।
সোমবার দুপুরে ওই গ্রামের ব্যাপারি বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। সাইদুল হক ওই গ্রামের আব্দুল
হাইয়ের ছেলে।
নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, সাইদুল হক তার সৎ ভাই আব্দুল আজিজের মেয়ে আখিকে
বিভিন্ন সময় নানাভাবে কু-প্রস্তাব দিতো। এমনকি বিয়ের প্রস্তাবও দেয় সে। ঘটনার দিন
সোমবার বিকেলে আঁখিকে দেখতে পাশ্ববর্তী গ্রামের জনৈক বিত্তশালী পরিবারের ছেলে পক্ষের
লোকজন আসার কথা শুনে পাষন্ড সাইদুল হক দারালো অস্ত্র নিয়ে বাহির হতে দেখতে পেয়ে তার মা
নুরুজাহান বেগম বাধা দেয়। এতে সে ক্ষিপ্ত হয়ে মাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে এবং তার সৎ
ভাই আব্দুল আজিজের ঘরে গিয়ে তার স্ত্রী নুরুনাহারকেও জবাই করলে ঘটনাস্থলেই তাদের বউ-
শ্বাশুড়ী দু’জনের মৃত্যু হয়।
সূত্রটি আরও জানায়, ওই ঘটনায় অন্যান্যদের মধ্যে আহত হয় আব্দুল আজিজের মেয়ে আরজু আক্তার,
জামাতা আরিফ হোসেন ও নয় মাসের নাতনি আফসানা আক্তার। ওই বাড়ির লোকজনের
আত্মচিৎকারে আশে পাশের লোকজন ছুটে এসে আহতদের উদ্ধার করে নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য
কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে তাদের অবস্থার অবনতি দেখা দিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের কুমিল্লা
মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।
এ ব্যাপারে সৎ ভাই আব্দুল আজিজ বলেন, তার সৎ মা নুরুজাহান ও ভাই সাইদুল হকের সঙ্গে
বাড়ির জমি-জমা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে নানাহ বিরোধ চলে আসছে। সে বেশ কয়েক বার তাদের
বাড়ি থেকে উচ্ছেদ করবে বলে হুমকি দিয়েছে। সে তার মেয়ে আখিকে বিভিন্ন কু-প্রস্তাবসহ
বিয়ের জন্য প্রস্তাব দেয়। সোমবার আখির বিয়ে উপলক্ষে বরপক্ষ তাকে দেখতে আসবে বলে খবর
জানতে পেরে ছোট ভাই সাইদুল হক তার স্ত্রী ও সৎ মাকে কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় তিনি
বিচারের দাবি জানান।
এ ব্যাপারে নাঙ্গলকোট থানার অফিসার ইনচার্জ বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, ৯৯৯ মাধ্যমে এ
হত্যার খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক পুলিশ বহর নিয়ে ওইগ্রামের ঘটনাস্থল থেকে শ্বাশুড়ি ও পুত্রবধূর লাশ
উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসি। ঘাতক সাইদুল হককে আটক করা হয়। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি
চলছে।

পথিকটিভি/ এ আর