অনৈতিক কাজে বাঁধা দেয়ায় চাচাত ভাইয়ের হাতে খুন আটক-৫

Spread the love

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি॥ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জের যাত্রাপুরের মাজারে গান বাজনা বাজানো নিয়ে বিরোধের জের ধরে প্রতি পক্ষের হামলায় ১জন নিহত হয়েছে। নিহতের নাম নূরুল ইসলাম (৫০)। সে সদর ইউনিয়নের যাত্রাপুর গ্রামের শহিদ মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৫ জনকে আটক করেছে। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, আশুগঞ্জের যাত্রাপুর গ্রামের আইতালি শাহ মাজারে গত কিছুদিন আগে উপজেলার চর চারতলা গ্রামের বাসিন্দা আল আমিন শাহ নামে এক যুবককে মাজারের খাদেম হিসেবে নিয়োগ পান। নিয়োগ পায়ার পর প্রতি বৃহস্পতিবার রাতে মাজারে নারী নিয়ে গান বাজনা ও মাদকের আড্ডা জমতে শুরু করে। বিষয়টি মাজারের পাশ্ববর্তী বাসিন্দা নুর ইসলাম গান বাজনা না বাজানোর জন্য বাধা দেন। এর জের ধরে নুর ইসলামের চাচাতো ভাই যাত্রাপুর গ্রামের জজ মিয়ার ছেলে মোশারফ,মোয়াজ্জেম ও মাজারের খাদেম আল আমিন শাহ এর সাথে নুর ইসলামের বিরোধ সৃষ্টি হয়। বিষয়টি নিয়ে শনিবার রাতেও উভয় পক্ষের মধ্যে হাতা হাতি হয়। এ ঘটনার জের ধরে রবিবার বিকেলে নুর ইসলামের চাচাতো মোশারফ,মোয়াজ্জেম ও মাজারের খাদেম আল আমিন তার লোকজন নিয়ে নুর ইসলামের উপর হামলা করে। এসময় বল্লম দিয়ে নুর ইসলামের বুকে আঘাত করলে গুরুত্বর আহত অবস্থায় জেলা সদর হাসাপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে। আশুগঞ্জ থানা পুলিশ জানান খাদেম নিয়ে বিরোধের জেরে এ ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৫ জনকে আটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে অভিযোগ পেলে মামলা দায়ের করা হবে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।